১০০০০ টাকার মধ্যে ১০ টি সেরা ফোন

স্মার্টফোন বর্তমানে আমাদের জীবনের একটা অংশ। কারণ আমাদের প্রতিদিন অনলাইন এর ওপর নির্ভর করতে হয়। যেমন, গাড়ি ভাড়া, বিদ্যুৎ বিল প্রদান, গ্যাস বিল, মোবাইল ব্যাংকিং, অনলাইন মানি ট্রনজেকশন বা নিজের ব্যাংক একাউন্ট নিয়ন্ত্রণ । সবই এখন ইন্টারনেট এর মাধ্যমে করা যায়। আর এগুলো একসেস করার জন্য প্রয়োজন হয় ইন্টারনেট সংযোগ সহ একটি কম্পিউটার সেট এর। আমাদের অনেকের ক্ষেত্রে কম্পিউটার ক্রয় করা সম্ভব হয় না বা ক্রয় করা সম্ভব হলেও এটি সাথে করে বহন করা অনেক ঝামেলার কাজ। তাই এর সহজ সমাধান হিসেবে বাজেট প্রাইস এর মধ্যে কিছুৃ স্মার্টফোন নিয়ে আলোচনা করবো। চলুন তাহলে আলোচনা করা যাক ১০০০০ টাকার মধ্যে ১০ টি সেরা ফোন সম্পর্কে:

Walton Primo NF5

এটি আমাদের একটি দেশীয় পন্য। ছোট নচ যুক্ত এই ফোনটি দেখতে অনেকটা প্রিমিয়াম লাগে। এই ফোনটি আপনি পাবেন বেশ ৪টি কালারে। তাই আপনি আপনার পছন্দের কালার টি বেছে নিতে পারেন। VoLTE নেটওয়ার্ক সম্বলিত এই ফোনটি আপনি পাবেন মাত্র ৯,৬৯৯ টাকায়। ১৩ মেগাপিক্সেল এর মোট ৩ টি ব্যাক ক্যামেরা ও ৮ মেগাপিক্সেলের সেলফি ক্যামেরা তে আপনি পাচ্ছেন ১০৮০ পিক্সেল এ ভিডিও রেকর্ডিং এর সুবিধা। এছাড়া আপনি লো বাজেট এর এই ফোনটি তে আপনি পাচ্ছেন ৩ জিবি র‌্যাম ও ৩২ জিবি রম এরং ফাস্ট চার্জিং এর সুবিধাসহ ৪০০০ মিলি এম্পিয়ারের ব্যাটারী। তাই চাইলে আপনি পাবাজি, ফ্রি-ফায়ার এর মতো মোবাইল গেম গুলোও খেলতে পারবেন অনায়াসে। এছাড়াও এতে সিকিউরিটি হিসেবে পাবেন ফিঙ্গার প্রিন্ট আনলক।

এছাড়াও এর উল্লেখযোগ্য ফিচারসগুলো:

  • Color: Earth Blue, Pastel Purple, Emerald Green, Carbon Black
  • র‍্যাম: ৩ জিবি
  • রম: ৩২ জিবি
  • ওজন: ২০২ গ্রাম
  • ডিসপ্লে সাইজ: ৬.৮২ ইঞ্চি
  • অপারেটিং সিস্টেম: অ্যান্ড্রয়েড ১০
  • চিপসেট: মিডিয়াটেক হেলিও এ ২০ (১২ এন এম)

প্রাইস: ৯,৬৯৯ টাকা

Vivo Y1s

২ কালার এর কম্বিনেশন এ ফোনের ব্যকপার্ট দেখতে অনেক সুন্দর লাগে। এ ফোনটিও আপনি বাজারে ২টি কালারে পাবেন। ১৬১ গ্রাম ওজন ও ৬.২২ ইঞ্চির এই ফোনে আছে ৫ মেগাপিক্সেল এর ১ টি ব্যাক ক্যামেরা এবং ১৩ মেগাপিক্সেলের সেলফি ক্যামেরা। যারা কম বাজেটে  একটি ভালো মানের সেলফি ক্যামেরা সহ ফোন নিতে চান তাদের জন্য এই ফোনটি একদম পারফেক্ট। এই ফোনে আপনি আরও যা পাচ্ছেন:

  • Color: Olive Black, Aurora Blue
  • 4G নেটওয়ার্ক সাপোর্টটেড
  • নচ ডিসপ্লে
  • ৪০৩০ মিলি এম্পিয়ার ব্যাটারী 
  • র‍্যাম: ২ জিবি
  • রম: ৩২ জিবি
  • ওজন: ১৬১ গ্রাম
  • ডিসপ্লে সাইজ: ৬.১২ ইঞ্চি
  • অপারেটিং সিস্টেম: অ্যান্ড্রয়েড ১০
  • চিপসেট: মিডিয়াটেক হেলিও পি ৩৫ (১২ এন এম)

প্রাইস: ৮,৯৯০ টাকা

পুরোনো ফোন কেনার আগে ১০ টি বিষয় জানা জরুরি

Oppo A12

কালো ও ব্লু রং এর এই ফোনটি দুরে থেকেও যেমন সুন্দর দেখায়; কাছে থেকেও ঠিক তেমনটিই। 4G নেটওয়ার্ক যুক্ত এর ফোনটি পাওয়া যায় ২ টি ভার্শনে । এটি ৪ জিবি র‌্যাম ও ৬৪ জিবি রম। অন্যটি ৩ জিবি র‌্যাম ও ৩২ জিবি রম। ৪/৬৪ ফোনটির মূল্য ১৩৯৯০ এবং ৩/৩২ ফোনটির মূল্য ৯৯৯০ টাকা। এই ফোনে আছে, ১৩ ও ২ মেগাপিক্সেল এর ২ টি ব্যাক ক্যামেরা ও ৫ মেগাপিক্সেল এর ১ টি সেলফি ক্যামেরা। ফাস্ট চার্জ সাপোর্ট এই ফোনটি তে আছে ৪২৩০ মিলি এম্পিয়ার ব্যাটারী । আরও রয়েছে বর্তমান যুগের ট্রেন্ড ফিঙ্গার প্রিন্ট সেন্সর। এছাড়াও অন্যান্য ফিচারসগুলো হলো:

  • Color: Black, Blue
  • র‍্যাম: ৩ জিবি
  • রম: ৩২ জিবি
  • ওজন: ১৬৫ গ্রাম
  • ডিসপ্লে সাইজ: ৬.২২ ইঞ্চি
  • অপারেটিং সিস্টেম: অ্যান্ড্রয়েড পাই (৯.০)
  • চিপসেট: মিডিয়াটেক হেলিও পি৩৫ (১২ এন এম)

প্রাইস:  ৯৯৯০ টাকা

Realme C11

যারা কম বাজেট এ ভালো ব্যাটারির ফোন খুজছেন অর্থাৎ বেশি  সময় ধরে ব্যাকআপ দিবে এমন ফোন খোঁজেন তাদের জন্য এই ফেনটি। এই ফোনে পাবেন ৫০০০ মিলি এম্পিয়ারের ব্যাটারি। তাই আপনি ব্যাটারি ব্যাকআপ। আর এই ব্যাটারীকে চার্জ করার জন্য এতে আছে ১০ ওয়াট ফাস্ট চার্জিং ব্যবস্থা। তাই আপনি অল্প সময়ের মধ্যে আপনার ফোনকে চার্জ করে নিতে পারবেন। এই ফোনের অন্যান্য ফিচার সমূহ:

  • Color: Pepper Grey, Mint Green
  • 4G নেটওয়ার্ক সাপোর্টটেড
  • নচ ডিসপ্লে
  • ৫০০০ মিলি এম্পিয়ার ব্যাটারি
  • র‍্যাম: ২ জিবি
  • রম: ৩২ জিবি
  • ওজন: ১৯৬ গ্রাম
  • ডিসপ্লে সাইজ: ৬.৫ ইঞ্চি
  • অপারেটিং সিস্টেম: অ্যান্ড্রয়েড ১০
  • চিপসেট: মিডিয়াটেক হেলিও জি৩৫ (১২ এন এম)

প্রাইস: ৮৯৯০ টাকা

itel A48

এটিও  VoLTE নেটওয়ার্ক সাপোর্টটেড একটি ফোন। তবে ডিসপ্লে সাইট তুলনামূলক একটু ছোট। ৬.১ ইঞ্চির এই ফোনে আছে ৫ ও ০.৩ মেগাপিক্সেল এর ২ টি ব্যাক ক্যামেরা ও ৫ মেগাপিক্সেল এর ১ টি সেলফি ক্যামেরা। ২ জিবি র‌্যাম ও ৩২ জিবি রম এর এই ফোনে চিপসেট হিসেবে ব্যবহার করা হয়েছে UniSoC SC9832E (28 nm). কম দামে প্রিমিয়াম লুকের এই ফোনটি একজন সাধারণ ইউজারের জন্য পারফেক্ট। এই ফোনের অন্যান্য ফিচারসগুলো হলো:

  • Color: Pepper Grey, Mint Green
  • 4G (VoLTE) নেটওয়ার্ক সাপোর্টটেড
  • নচ ডিসপ্লে
  • ৩০০০ মিলি এম্পিয়ার ব্যাটারি
  • র‍্যাম: ২ জিবি
  • রম: ৩২ জিবি
  • ওজন: ১৬৪ গ্রাম
  • ডিসপ্লে সাইজ: ৬.১ ইঞ্চি
  • অপারেটিং সিস্টেম: অ্যান্ড্রয়েড ১০
  • চিপসেট: UniSoC SC9832E (28 nm)

Samsung Galaxy M01 Core

ইন্টারন্যাশনাল ব্রান্ড এর এই ফোনটি পাবেন মাত্র ৭৯৯৯ টাকায়। এই ফোনটি আপনি পাবেন তিনটি কালার এ। ৩০০০ মিলি এম্পিয়ার ও ৫.৩ ইঞ্চি ডিসপ্লে সম্পন্ন এই ফোনের ওজন মাত্র ১৫০ গ্রাম। এই ফোনে আপনি পাচ্ছেন ৮ মেগাপিক্সেল ব্যাক ক্যামেরা ও ৫ মেগাপিক্সেল সেলফি ক্যামেরা। এই ফোনটি পাবেন ২ টি ভার্সন এ। একটি ১ জিবি র‌্যাম ও ১৬ জিবি রম এর এবং অন্যটি ২ জিবি র‌্যাম ও ৩২ জিবি রম এ। ২টি ভার্সন এর মূল্যই ১০০০০ এর মধ্যে। 

এই ফোনের অন্যান্য ফিচার গুলো:

  • Color: Red, Blue, Black
  • 4G নেটওয়ার্ক সাপোর্টটেড
  • ৩০০০ মিলি এম্পিয়ার ব্যাটারি
  • র‍্যাম: ১/২ জিবি
  • রম: ১৬/৩২ জিবি
  • ওজন: ১৫০ গ্রাম
  • ডিসপ্লে সাইজ: ৫.৩ ইঞ্চি
  • অপারেটিং সিস্টেম: অ্যান্ড্রয়েড ১০
  • চিপসেট: Mediatek MT6739 (28 nm)

প্রাইস: ৭৯৯৯/৮৯৯৯ টাকা

Xiaomi Redmi 9A

শাওমি কোম্পানির সাবব্রান্ড এটি। বলতে পারেন এই কোম্পানির ফোন গুলো এখন বিশ্ব কাপিয়ে বেড়াচ্ছে। এটির কম ও বেশি দামী উভয় ফোন পাওয়া যাওয়ায় মধ্যবিত্ত থেকে উচ্চবিত্ত সবারই পছন্দের ফোন হয়েছে এটি।  Xiaomi Redmi 9A তেমনি একটি ফোন। এই ফোনে আপনি পাবেন ২ জিবি র‌্যাম ও ৩২ জিবি রম। সাথে ইনফ্রারেড সেন্সর থাকায় এটি দিয়ে আপনি টিভি, এসি সহ যে কোন রিমোট কন্ট্রোল এপ্লাইন্স আপনি কন্ট্রোল করতে পারবেন। মূলত এই ফিচারটি এই ফোনকে সবার থেকে আলাদা করে রেখেছে। এছাড়াও এতে OTG এর মাধ্যমে আপনি আপানর পেনড্রাইভ বা এক্সট্রা মেমোরি কার্ড ব্যবহার করতে পারবেন। 

এই ফোনের অন্যান্য ফিচার সমূহ:

  • Color: Peacock Green, Granite Gray, Sky Blue
  • 4G নেটওয়ার্ক সাপোর্টটেড
  • ৫০০০ মিলি এম্পিয়ার ব্যাটারি
  • ১০ ওয়াট ফাস্ট চার্জিং
  • র‍্যাম: ২ জিবি
  • রম: ৩২ জিবি
  • ওজন: ১৯৪ গ্রাম
  • ডিসপ্লে সাইজ: ৬.৫৩ ইঞ্চি
  • অপারেটিং সিস্টেম: অ্যান্ড্রয়েড ১০ (এমআইইউআই ১২)
  • চিপসেট: MediaTek Helio G25 (12 nm)

প্রাইস: ৯৯৯৯ টাকা।

Samsung Galaxy A01

স্যামসাং তাদের গতানুগতিক মডেল থেকে বের হয়ে এই মডেল এর ফোনটা তৈরী করেছে। ডুয়েল ক্যামেরার এই ফোনটি বাজারে এসেছে এন্ড্রয়েট ১০ ভার্শনে । এতে রয়েছে ২ জিবি র‌্যাম ও ১৬ জিবি রম। ৩০০০ মিলি এম্পিয়ার ব্যাটারিতে যোগ করা হয়নি কোন ফাস্ট চার্জ প্রযুক্তি। এটিতে ১৩ ও ২ মেগাপিক্সেল এর ২ টি ব্যাক ক্যামেরা এবং ৫ মেগাপিক্সেল এর একটি সেলফি ক্যামেরা আছে। অন্যান্য ব্রান্ডের ফোন এই প্রাইস এর মধ্যে ভালো মানের সেলফি ক্যামেরা দিলেও এই ফোনটি কে ব্যাক ক্যামেরার দিকে বেশি ফোকাস করা হয়েছে। যাই হোক চলুন দেখে নিই এই  ফোনের অন্যান্য ফিচার গুলো: 

  • Color: Red, Blue, Black
  • 4G নেটওয়ার্ক সাপোর্টটেড
  • OTG সাপোর্টটেড
  • ৩০০০ মিলি এম্পিয়ার ব্যাটারি
  • র‍্যাম: জিবি
  • রম: ১৬ জিবি
  • ওজন: ১৪৯ গ্রাম
  • ডিসপ্লে সাইজ: ৫.৭ ইঞ্চি
  • অপারেটিং সিস্টেম: অ্যান্ড্রয়েড ১০
  • চিপসেট: Qualcomm Snapdragon 439 (12 nm)

প্রাইস: ৯৯৯৯ টাকা

Symphony Z16

সিম্ফনি ব্র্যান্ড কিছু দিন আগেও ফিচারস ফোন এর মার্কেট তাদের নিজের দখলে রেখেছিল। তখন মানুষ ফোন বলতে শুধু সিম্ফনি কেই বুঝতো। কিন্তু বর্তমানে স্মার্টফোন সহজ লোভ্য ও কম দামের পাশাপাশি আমাদের প্রতিনিয়ত স্মার্টফোন এর ওপর নির্ভরশীল হবার কারণে সকল ফিচারস ফোনের চাহিদা কমে যায়। তাই সিম্ফনি যুগের সাথে তাল মিলিয়ে বাজারে আনে Symphony Z16 মডেল এর এই স্মার্ট ফোনটি। এই স্মার্টফোনের বাজার মূল্য মাত্র ৮২৯০ টাকা। এই বাজেটের মধ্যে এই ফোনে তারা দিচ্ছে ১৩, ২ ও ৫ মেগাপিক্সেল এর ৩ টি ব্যাক ক্যামেরা। ফলে আপনি ৩ ক্যামেরার কম্বিনেশন এ portrait mode ছবি তুলতে পারবেন। এছাড়া রয়েছে ৮ মেগাপিক্সেল এর সেলফি ক্যামেরা। যাই হোক চলুন দেখে নিই এই ফোনের অন্যান্য ফিচার গুলো:

  • 4G নেটওয়ার্ক সাপোর্টটেড
  • OTG সাপোর্টটেড
  • ৪০০০ মিলি এম্পিয়ার ব্যাটারি
  • ফিঙ্গারপ্রিন্ট সাপোর্ট
  • র‍্যাম: ২ জিবি
  • রম: ৩২ জিবি
  • ওজন: ১৮০ গ্রাম
  • ডিসপ্লে সাইজ: ৬.৫২ ইঞ্চি
  • অপারেটিং সিস্টেম: অ্যান্ড্রয়েড ১০
  • চিপসেট: MediaTek Helio A25 (12 nm)

প্রাইস: ৮২৯০ টাকা

Tecno Spark 5 Air

বাংলাদেশী ইউজারদের কথা মাথায় রেখে সব থেকে কম দামে বেশি ফিচারস দিচ্ছে টেকনো। টেকনো এর এই ফোনে তারা দিচ্ছে ১৩ মেগাপিক্সেল ও QVGA এর ডুয়াল ব্যাক ক্যামেরা। quad-LED flash থাকায় অন্ধকারেও ভালো ছবি তুলতে পারবেন। এছাড়া ডুয়াল এলইডি ফ্লাশ থাকায় ৮ মেগাপিক্সেলএর সেলফি ক্যামরাতেও আপনি অন্ধকারে খুব ভালো ভাবে সেলফি নিতে পারবেন। ১০ ওয়ার্ড এর ফাস্ট চার্জিং এর সাথে এই ফোনে আছে ৫০০০ মিলি এম্পিয়ারের ব্যাটারি এনড্রয়েট ১০ (গো এডিটেশন) এর ফোনটি আপনি পাবেন মাত্র ৯৯৯০ টাকায়। চলুন এবার দেখে নেয়া যাক এর অন্যান্য ফিচারস সমূহ:

  • 4G নেটওয়ার্ক সাপোর্টটেড
  • OTG সাপোর্টটেড
  • ৫০০০ মিলি এম্পিয়ার ব্যাটারি
  • ফাস্ট চার্জ সাপোর্ট
  • ফিঙ্গারপ্রিন্ট সাপোর্ট
  • র‍্যাম: ২ জিবি
  • রম: ৩২ জিবি
  • ডিসপ্লে সাইজ: ৭ ইঞ্চি
  • অপারেটিং সিস্টেম: অ্যান্ড্রয়েড ১০
  • চিপসেট: Mediatek Helio A22 (12 nm)

প্রাইস: ৯৯৯০ টাকা

এখানে যেগুলো ফোন সম্পর্কে আলোচনা করা হলো সেগুলো ১০০০০ টাকার মধ্যে ১০ টি সেরা ফোন। এর বাইরেও আরও অনেক ফোন আছে এই বাজেটের মধ্যে। সেগুলো নিয়ে আলোচনা করবো অন্য কোন পোষ্টএ। সে পর্যন্ত আপনাদের বিদায় জানাই। আর এই পোস্টটি  কেমন লাগলো বা আপনার মতামত কমেন্টে জানাতে ভুলবেন না। 

Leave a Comment

Recommended
গর্ভাবস্থা অন্য যে কোন সময়ের থেকে সম্পূর্ণ আলাদা৷…
Cresta Posts Box by CP